সংবাদ শিরোনাম :
যারা শোষন বঞ্চনার অবসান ঘটিয়ে অনাগত ভবিষ্যাৎ প্রজম্মের জন্য একটি সুখী সমৃদ্ধি বাংলাদেশ উপহার দিয়েছে তাদের প্রতি জানাই হাজারো সালম —– মেয়র আশরাফুল আলম লিটন নবাবগঞ্জে মহিলা যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন বাঙ্গালী জাতির কাছে গর্বের মাস ডিসেম্বরঃ মুজিব বর্ষে পৌরসভার আরো ৮টি ওয়ার্ডে স্কুল স্থাপন হবে — মেয়র লিটন বিজয় দিবসে শার্শায় গরিব দুঃস্থদের জন্য ‘ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পের’ আয়োজন বেনাপোলে ৯২ লাখ টাকার ১৮ টি স্বর্নের বার উদ্ধার সারাদেশে সাংবাদিক নিয়োগ তথ্যপ্রযুক্তি জ্ঞান অর্জনের মাধ্যমে নতুন প্রজন্মকে আধুনিক বাংলাদেশের নির্মাতা হিসাবে গড়ে তুলতে হবে—– মেয়র আশরাফুল আলম লিটন যে কারো হাতে ছুরি কাচি তুলে দিয়ে যেমন অপারেশন হয়না, তেমনি যে কারো হাতে কলম বুম তুলে দিয়ে সাংবাদিক বানানো যায় না ডিমলা রিপোর্টার্স ইউনিটি’র উদ্যোগে মহান বিজয় দিবসের প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত যশোরের শার্শার কদম বিলে অতিথি পাখির মেলা
অভিভাবকহীন ররোয়া পশ্চিমপাড়া রাস্তা

অভিভাবকহীন ররোয়া পশ্চিমপাড়া রাস্তা


মোঃ হাবিবুর রহমান হাবিব, শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি ঃ

বগুড়া শেরপুর উপজেলার সীমাবাড়ী ইউনিয়নের ররোয়া পশ্চিমপাড়া মজুর উদ্দিনের বাড়ী থেকে (যা আমতলা নামক জায়গায় পরিচিত) শুরু করে ররোয়া প্রামাণিক পাড়া সীমাবাড়ী ররোয়া ঈদগাহ মাঠ পর্যন্ত জনসাধারণের চলাচলের রাস্তার বেহাল অবস্থা। এই জনবহুল রাস্তাটি নিয়ে নেই কারো মাথাব্যাথা। ডিজিটাল বাংলাদেশে প্রায় প্রত্যন্ত গ্রামের রাস্তাও পাকাকরন করা হইয়াছে, কিন্তুু এই ররোয়া পশ্চিমপাড়া রাস্তাটিতে আজ পর্যন্ত ডিজিটালের কোন ছোঁয়াই লাগেনি। ররোয়া পশ্চিমপাড়া এই রাস্তা দিয়ে সারাদিন-রাত ররোয়া গ্রামে নামকরা কবিরাজের বাড়ী হওয়ায়, সিএনজি, কার, মাইক্রো, অটোবাইক, হিউম্যান হলার, বাইক সহ অটোরিক্সা এই জনবহুল রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করে থাকে। একটু বৃষ্টি হলেই এই রাস্তাটি কর্দমাক্ত হয়ে পড়ে, এতে ছাত্র-ছাত্রী সহ এলাকার সকল বয়সী জনসাধারণের চলাচল করতে অনেক কষ্ট পোহাতে হয়। ররোয়া পশ্চিমপাড়া গ্রামে খেটে খাওয়া মানুষ তাদের কষ্টের উপার্জন করা ফসল ভ্যান যোগে বিক্রয় করার জন্য প্রচুর কষ্টের ম্যাধ্যমে বাজারে নিতে হয়। ররোয়া পশ্চিমপাড়া এই জনবহুল রাস্তাটির পাশে আছে একটি মাদ্রাসা, রুহি মাল্টিমিডিয়া স্কুল, মসজিদ, আর্জিনা হামিদ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় অবস্থিত। এই বেহাল রাস্তা দিয়ে কোমলমতি শিশুরা কোচিং, স্কুল, মাদ্রাসায় যাতায়াত করেন। সীমাবাড়ি ইউনিয়নের জন প্রতিনিধিকে অবগত করা হলেও এখন পর্যন্ত কোন পদক্ষেপ নিতে দেখা যায়নি। জনবহুল রাস্তাটি অবিলম্বে মেরামত করার দাবি জানান ররোয়া পশ্চিমপাড়া সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মী মোঃ শাহাদত হোসেন সহ গ্রামের বিশিষ্ট সমাজসেবক ও জনসাধারণেরা এই বেহাল অভিভাবক রাস্তাটির মেরামতের দাবি জানান।

সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত-২০১৮-এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি
Theme Developed BY AMS IT & Solutions